January 27, 2021
You can use WP menu builder to build menus
Jan 26, 2021 0

আসুন জেনে নেই কিছু সুন্দর সমাধান!

বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা বলেন, বাচ্চা জন্মের পরি তার শরীর থেকে তরল অংশ হ্রাস পেতে থাকে জার জন্য ১ সপ্তাহেই বাচ্চা বেশ কিছু ওজন হারায়।

এরপর বাচ্চা ওজন হারালেও এক মাস থেকে ওজন আবার বাড়তে থাকে এবং পাচ- ছয় মাস বয়সে বাচ্চার ওজন তার জন্মের সময়ের প্রায়   দিগুন হয়ে যায় এবং এক বছরে হয় প্রায় তিন গুন।

এখন যদি বাচ্চার ওজন এই সাধারন প্রক্রিয়ার ব্যতিক্রম হয় বা বাচ্চা খেতে না চায় বা ওজন চাহিদা অনুযায়ী  না বাড়ে তবে বেশ কিছু দিকে লক্ষ্য রাখা প্রয়োজন।

  # বাচ্চা কি বুকের দুধ খায় না ফর্মুলা। কারন বাচ্চা বুকের দুধ পেলে ওজন স্বাভাবিক থাকে আর ফর্মুলা পাওয়া বাচ্চা বেশী ভারী হয়ে থাকে।

# বাচ্চা যদি বুকের দুধ খায় তবুও ওজন স্বাভাবিক থেকে কম। তবে বাচ্চা কি ঠিকমত দুধ পাচ্ছে, এই জন্য মাকে পুষ্টিকর খাবার ও প্রচুর তরল ও যে সব খাবার খেলে দুধ বাড়বে সেগুলো খেতে হবে ও দুধ খাওয়ার সময় বাচ্চার পজিশন ও এটাচমেন্ট ঠিক হচ্ছে কিনা তা লক্ষ্য রাখতে হবে , বাচ্চার প্রসাব পায়খানা স্বাভাবিক নিয়মে হচ্ছে কিনা (নিয়মিত) এটাও বুঝার একটা উপায়।

# বাচ্চাকে ডিমান্ড ফিডিং দিতে হবে মানে চাহিদা মত কাদলে খেতে দেয়া এবং এক টানা কমপক্ষে ১০-১৫ মিনিট এক পাশের বুকের দুধ দিতে হবে, সাধারণত ২-৩ ঘন্টা পর পর বাচ্চাকে খাওয়াতে হয়। এবং বাচ্চা যদি নিয়মিত প্রসাব – (৫-৬ বার কমপক্ষে), পায়খানা(দিনে এক বার) করে এবং পর্যাপ্ত ঘুম (১৬-১৮ ঘন্টা) ঘুনায়, এবং বয়স অনুযায়ী ওজন বাড়ছে  তাহলে বুঝতে হবে

বাচ্চা সুস্থ আছে ও ঠিকমত দুধ পাচ্ছে।

# বাচ্চাকে টানা ছয় মাস শুধু বুকের দুধ দেয়ার চেষ্টা করা উচিত। ছয় মাস পড়ে দু তিন বার বাড়তি খাবার এর ব্যবস্থা করা উচিত।

# তবে এ নিয়ম গুলো সব শিশুর জন্য এক নয়, যেমন কিছু বাচ্চা মায়ের দুধ কম পায়, বা সময়ের আগেই জন্ম নেয়ার জন্য কিছু দুর্বলতা বা মুখে ঘা থাকার জন্য খেতে পারে না, তাই তাদের জন্য চিকিৎসকএর নির্দেশনা অনুযায়ী  প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে। বাচ্চারা খাবার পরে পরিষ্কার নরম কাপড় দিয়ে প্রতিবার হাল্কা ভাবে মুখের ভেতর, জিহবা পরিষ্কার করা উচিত,  তা না হলে বাচ্চা অনেক সময়ই মুখে ছত্রাক জনিত ঘা এ আক্রান্ত হয়।  অপুষ্টিজনিত রোগে আক্রান্ত শিশুকে ভিটামিন বি কম্পলেক্স এবং আয়রন জাতীয় মাল্টিভিটামিন দেয়া যেতে পারে তবে তা অবশ্যই অভিজ্ঞ চিকিৎসক এর পরামর্শ অনুযায়ী।

ডক্টর ম্যানহল,

ওয়েব রাইটার এন্ড রিসার্চার,

Read More

টেলি-হেলথের সংক্ষিপ্ত পরিচিতি

Aug 29, 2019 0

টেলিহেলথের অস্তিত্ব ১৯৬০ এর দশক থেকে শুরু হয় , কিন্তু এই সেবা সম্প্রতি ব্যাপকভাবে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে ।  টেলিহেলথের প্রথম প্রয়োগগুলির মধ্যে নভোচারীদের শারীরিক অবস্থা পর্যবেক্ষণ করা ছিল অন্যতম ।

Read More